মিলাদের মিষ্টি খেয়ে হাসপাতালে ১২শিশু

মিলাদ শেষে সকলের সাথে বাড়ির এসব শিশুরাও মিষ্টি খায়। এরপর থেকে প্রতিটি শিশু পেট ব্যাথায় চিৎকার ও বমি শুরু করে। স্থানীয় চিকিৎসকদের কাছ থেকে ঔষধ খাওয়ানোর পরও তারা সুস্থ না হওযায় রাত সাড়ে ৯টার দিকে তাদেরকে লালমোহন সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

|| সারাবেলা প্রতিনিধি ,লালমোহন ||

ভোলার লালমোহনে মিলাদের মিষ্টি খেয়ে অসুস্থ হয়ে পড়া ১২শিশুকে হাসপাতালে ভর্তি করেছে তাদের স্বজনেরা।

শুক্রবার ১৬ জুলাই বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে উপজেলার ফরাজগঞ্জ ইউনিয়নের ৫নং ওয়ার্ড কিশোরগঞ্জ গ্রামে আয়োজিত মিলাদের মিষ্টি খেয়ে অসুস্থ হয়ে এসব শিশুরা। পরে রাত সাড়ে ৯টার দিকে তাদেরকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

অসুস্থরা হলেন, একই বাড়ির হোসাইন (২), আচিয়া (৮), জুনায়েদ (২), তামিম (৯), শাহরুখ (৯), সোলাইমান (৩), তানহা (৩), সিফাত (৯), তানজিম  (৫), ফারিয়া (২), ফাহিম (৬) ও আবদুল্লাহ (৩)।

শিশুদের অভিভাবকরা জানান, কিশোরগঞ্জ গ্রামের মনপুরা বাড়ির সিরাজের ছেলে সুজন নতুন অটোরিকশা ক্রয় করায় শুক্রবার দুপুর সাড়ে ৩টার দিকে বাড়িতে মিলাদের আয়োজন করে।

মিলাদ শেষে সকলের সাথে বাড়ির এসব শিশুরাও মিষ্টি খায়। এরপর থেকে প্রতিটি শিশু পেট ব্যাথায় চিৎকার ও বমি শুরু করে। স্থানীয় চিকিৎসকদের পরামর্শে ঔষধ খাওয়ানোর পরও তারা সুস্থ না হওযায় রাত সাড়ে ৯টার দিকে তাদেরকে লালমোহন সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

লালমোহন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডাঃ সরোওয়ার্দী বলেন, খাবারে বিষক্রিয়ার ফলে শিশুরা অসুস্থ হয়ে পড়েছে। বর্তমানে তারা চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

আরও পড়ুনঃ  জায়গা নেই কুমিল্লারি বেওয়ারিশ লাশ দাফনের কবরস্থানে

লালমোহন থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. মাকসুদুর রহমান মুরাদ বলেন, সংবাদ পেয়ে হাসপাতালে ও ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। অভিযোগ পেলে তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এই সম্পর্কিত আরও সংবাদ

সংবাদ সারাবেলা