দিরাইয়ে পরিকল্পনা মন্ত্রীর সফর নিয়ে বিরোধ উত্তেজনা আওয়ামী লীগে

|| সারাবেলা প্রতিনিধি, সুনামগঞ্জ ||

পরিকল্পনা মন্ত্রী এম এ মান্নানের সফর নিয়ে বিরোধে জড়িয়েছে সুনামগঞ্জের দিরাই উপজেলা আওয়ামী লীগ। শনিবার ২০শে ফেব্রুয়ারি তিনি আসছেন দিরাইতে। উদ্বোধন করবেন উপজেলার জগদল ২০শয্যা বিশিষ্ট হাসপাতালের সেবা কার্যক্রম। মন্ত্রী সুরঞ্জিত সেনগুপ্ত ২০১৩ সালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার স্বাস্থ্য বিষয়ক উপদেষ্টা ডা. সৈয়দ মোদাচ্ছের আলীকে নিয়ে হাসপাতালটির নির্মাণ কাজের উদ্বোধন করেছিলেন। নির্মাণ কাজশেষে প্রায় ৮বছর পর এই হাসপাতালটির সেবা কার্যক্রমের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করতে যাচ্ছেন পরিকল্পনা মন্ত্রী এমএ মান্নান। এছাড়াও মন্ত্রী হাওরের ফসল রক্ষাবাঁধের অগ্রগতিও দেখবেন। অংশ নেবেন উপজেলা প্রশাসনের আইনশৃঙ্খলা বিষয়ক সভায়।

পরিকল্পনা মন্ত্রীর এই সফর নিয়ে মতবিরোধে জড়িয়েছে স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা। একপক্ষ পরিকল্পনা মন্ত্রীর সকল কার্যক্রমকে স্বাগত জানিয়ে ব্যাপক প্রস্তুতি নিয়েছে। আর অন্যপক্ষ স্থানীয় এমপি ও আওয়ামী লীগের বেশকিছু সংখ্যক নেতাকর্মীদের জানানো হয়নি বলে অভিযোগ করে পরিকল্পনা মন্ত্রীর সফরের বিরোধিতা করছেন। সফর ঠেকাতে প্রতিবাদসভাসহ করেছে সংবাদ সম্মেলন। এনিয়ে দুইগ্রুপের মাঝে দেখা দিয়েছে চরম উত্তেজনা।

বিভিন্ন সূত্রে খোঁজ নিয়ে জানা যায়- পরিকল্পনা মন্ত্রী এমএ মান্নানের আগমনকে স্বাগত জানিয়ে তার সফরকে সফল করতে জেলার দিরাই উপজেলার জগদল, হোসেনপুর, নগদীপুর, কলিয়ার কাপন ও মিলনগঞ্জ বাজারে গত কয়েকদিন ধরে ধারাবাহিক ভাবে পৃথক প্রস্তুতি সভা করেছে স্থানীয় আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ ও অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীরা।

আরও পড়ুনঃ  টেকনাফে প্রায় সোয়া লাখ ইয়াবা মিলল কাঠের নৌকায়

এছাড়াও বৃহস্পতিবার ১৮ই ফেব্রুয়ারি সন্ধ্যায় দিরাই উপজেলা সদরে আনন্দ র‌্যালি করা হয়েছে। অনুষ্ঠিত সভা ও র‌্যালিতে নেতৃত্বে দিয়েছেন- উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি আছাব উদ্দিন সরকার, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মোশারফ মিয়া, দফতর সম্পাদক নুরুল ইসলাম, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মঞ্জুল আলম চৌধুরী, উপজেলা যুবলীগ সভাপতি রঞ্জন কুমার রায়, কৃষক লীগের সভাপতি তাজুল ইসলাম।

তাদের সাথে ছিলেন- পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জসিম উদ্দিন চৌধুরী, মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক সম্পাদক শামসুল হক মঙ্গলা মিয়া, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান মোহন চৌধুরীসহ দলের অন্যান্য নেতাকর্মীবৃন্দ।

অপরদিকে পরিকল্পনা মন্ত্রীর অনুষ্ঠান বজর্নের ঘোষনা দিয়ে বৃহস্পতিবার ১৮ই ফেব্রুয়ারি বিকেলে জগদল গ্রামে প্রতিবাদ সভা করা হয়। ওই সময় দুইগ্রুপের নেতাকর্মীরা মুখোমুখি অবস্থান নিলে উত্তেজনা দেখা দেয়। পরে পুলিশের হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে। এরআগে গত মঙ্গলবার দলীয় কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলন করেছেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি এ্যাডভোকেট সোহেল আহমেদ।

তিনি বলেন- দলীয় নেতাকর্মীদেরকে না জানিয়ে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারপারসন তারেক রহমানের ঘনিষ্ট সহচর মিজানুর রহমানের আমন্ত্রণে পরিকল্পনা মন্ত্রী এম এ মান্নান হাসপাতাল উদ্বোধন করতে আসছেন। স্থানীয় আওয়ামী লীগকে উপক্ষো করার কারণে মন্ত্রীর সফর বর্জন করাসহ তীব্র নিন্দা জানানো হয়। উক্ত সংবাদ সম্মেলন ও প্রতিবাদ সভায় উপস্থিত ছিলেন- উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি এ্যাডভোকেট সিরাজুদ্দৌলা, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক অবিরাম তালুকদার,  সাবেক পৌর মেয়র আজিজুল রহমান, বর্তমান মেয়র বিশ্বজিৎ রায় প্রমুখ।

আরও পড়ুনঃ  লাকসামে এক মা জন্ম দিল ৫ সন্তান

 

 

এই সম্পর্কিত আরও সংবাদ

সংবাদ সারাবেলা