জনবল সংকটে সেবা দিতে পারছে না লালমোহন মৎস্য অফিস

|| সারাবেলা প্রতিনিধি, লালমোহন (ভোলা) ||

দ্বীপজেলা ভোলার লালমোহন উপজেলা মৎস্য অফিস। উপজেলা পূর্বে মেঘনা ও পশ্চিমে তেঁতুলিয়া নদী বেষ্টিত এলাকার মৎস্য অফিসটি অন্যান্য এলাকার চাইতে বেশি ব্যস্ততায় থাকতে হয়। বিশেষ করে মা ইলিশ রক্ষা, জাটকা নিধনরোধ ও মৎস্যচাষীদের আধুনিকায়ন করে সাবলম্বী করে তুলতে বিভিন্ন প্রশিক্ষণসহ তাদের সুযোগ সুবিধায় নজর রাখতে হয়।

তবে সরকার কর্তৃক ঘোষিত সকল নির্দেশনা বাস্তবায়নে উপজেলা মৎস্য অফিসে নেই পর্যাপ্ত পরিমাণের জনবল, ফলে ব্যহত হচ্ছে সেবা কার্যক্রম। উপজেলা মৎস্য অফিস সূত্রে জানা যায়, এ অফিসে ৫জন জনবল থাকার কথা থাকলেও উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা ও একজন পিয়নসহ রয়েছেন মোট দুইজন।

গত বছেরর আগষ্ট থেকে শূন্য রয়েছে সহকারী মৎস্য কর্মকর্তার পদ, ক্ষেত্র সহকারী মো. বাবুলের অসুস্থতা ও পেনশনজনিতকারণে গত ৩বছর ধরে সে পদটি শূন্য রয়েছে  এবং পেনশন জনিত কারণে অফিস সহকারী কাম কম্পিউটার অপারেটর আ. মালেক চলে যাওয়ায় গত ১৪ মাস ধরে খালি রয়েছে সে পদটিও। ফলে নিজ দফতরের পাশাপাশি সরকারি অন্য দফতরের বিভিন্ন দায়িত্ব (যেমন- প্রশিক্ষণ, তদন্ত, পরীক্ষা কেন্দ্রের ডিউটি) একাই সামলাতে হয় উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তাকেই।

জনবল সংকটে সেবা ব্যহতের কথা স্বীকার করে উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা মো. রুহুল কুদ্দুছ (চঃ দাঃ) জানান, অফিসের ৫টি পদের মধ্যে ৩টি পদই শূন্য রয়েছে। পদগুলো পূরণের জন্য ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ জানানো হয়েছে।  জনবল শূণ্যতায় অতিরিক্ত দায়িত্ব পালন করতে গিয়ে তাকে হিমশিম খেতে হয়, এতে অনেক সময় মাঠপর্যায়ের সেবাও ব্যাহত হয়। তাই সেবা নিশ্চিতের লক্ষ্যে দ্রুত জনবল সংকট নিরসনে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সুদৃষ্টি কামনা করেছেন এ কর্মকর্তা।

আরও পড়ুনঃ  মানুষের মানুষ হেমন্ত সরকারকে স্মরণ করলো নড়াইলের মানুষ

এই সম্পর্কিত আরও সংবাদ

সংবাদ সারাবেলা